ই-পেপার

মেঘনায় ট্রলারে ডাকাতি, গরু বিক্রির ৩০ লাখ টাকা লুট

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট: July 6, 2022

হাটে ১৮ গরু ও ৫০ ছাগল বিক্রি করে ফেরার পথে বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জের মেঘনা নদীতে গরু ও ব্যবসায়ীদের বহনকারী ট্রলারে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে।

মঙ্গলবার (০৫ জুলাই) সন্ধ্যা সোয়া ৭ টার দিকে মেহেন্দিগঞ্জের গোবিন্দপুর চরের ৮ নম্বর ঘাট সংলগ্ন মেঘনা নদীতে এ ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে গরু ব্যবসায়ীরা।

পাশাপাশি ডাকাতদের হামলায় ট্রলার (স্টিলের তৈরি বোট) মাঝিসহ মাঈনুল বেপারী নামে এক গরু ব্যবসায়ী আহত হয়েছেন। ডাকাতরা গরু ব্যবসায়ীদের কাছে থাকা ৩০ লাখ টাকা লুট করেছে বলে দাবি করা হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ডাকাতের কবলে পরা ব্যবসায়ী আজিজ মুঠোফোনে জানান, অণ্য দিনের মতো মঙ্গলবার সকালে তারা ৭-৮ জন গরু ব্যবসায়ী ও তাদের সহযোগীসহ মোট ১৫ জন লোক ২৮টি গরু ও ৫০টি ছাগল নিয়ে মেহেন্দিগঞ্জ থেকে ট্রলারে করে মেঘনা নদী পাড়ি দিয়ে নোয়াখালীর লক্ষীপুরের মোল্লারহাটে যান।

অন্যদিন বিকেল সাড়ে ৩ টার দিকে রওয়ানা হলেও মঙ্গলবার ঈদের কেনাকাটা করতে গিয়ে তাদের দেরি হয়। তাই বিকেল ৫ টার দিকে বিক্রি না হওয়া ১০টি গরু নিয়ে মোল্লারহাট থেকে পুনরায় তারা মেহেন্দিগঞ্জের উদ্দেশে ট্রলারে করে রওয়ানা দেন।

তিনি বলেন, মেহেন্দিগঞ্জের গোবিন্দপুর চরের ৮ নম্বর ঘাট সোজাসুজি মেঘনা নদীতে পৌঁছালে পেছনে একটি ট্রলার দেখতে পাই। প্রথমে আমরা মনে করেছিলাম সেটি জেলেদের ট্রলার। পরে ট্রলারটি আমাদের বোটের কাছে আসে এবং সেই ট্রলার থেকে যুবক বয়সী ৭-৮ জন লোক আমাদের বোটে ওঠে।

এসময় আমাদের ট্রলারে থাকা মাঝি-ব্যবসায়ীসহ সকলকে লাঠি ও লোহার রড দিয়ে বেধরক মারধর করে দুর্বৃত্তরা। তাদের হামলায় ট্রলার মাঝি ও গরু ব্যবসায়ী মাঈনুল বেপারী রক্তাক্ত জখম হয়।

তিনি বলেন, মারধরের একপর্যায়ে ব্যবসায়ীদের কাছে থাকা গরু ও ছাগল বিক্রির ৩০ লাখ টাকা লুটে নেয় ডাকাতরা। যদিও ট্রলারে থাকা ১০টি গরু নেয়নি তারা।

এ বিষয়ে কালিগঞ্জ নৌ-পুলিশের পরিদর্শক ফারুক হোসেন বলেন, বিষয়টি জানতে পেরে আমরা খোঁজ খবর নিয়েছি। ব্যবসায়ীদের সাথে কথা বলেছি। ডাকাতদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

এদিকে, মেহেন্দিগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শফিকুল ইসলাম জানান, নৌ পুলিশের কাছ থেকে শুনেছি মেঘনার লালবয়া নামক এলাকায় এরকম একটি ঘটনা ঘটেছে। তবে এখনও এ বিষয়ে কোন লিখিত অভিযোগ থানায় আসেনি।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন